Sponsor

banner image

recent posts

প্রিন্সিপালের ভাগনি

লেখক ঃ-Azizur Rahman Sopon ক্লাস করার সময় দপ্তরি আমাকে ডেকে গেলো প্রিন্সিপাল স্যার নাকি আমাকে ডাকছে,,, স্যার হঠাৎ আমাকে কেনো ডাকবে এসব কথা ভাবতে ভাবতে, স্যারের রুমের দরজার সামনে গেলাম,,, - স্যার আসতে পারি(আমি) - হুম আসো (স্যার) রুমে ঢুকে দেখি ঈশিকা ও স্যারের ওখানে আমি কিছু বুঝলাম না,,,চুপচাপ দাড়িয়ে আছি,,, - তুমাকে আমি এতো ভালো মনে করছিলাম,, ভাবছিলাম তুমি অনেক ভদ্র,, কিন্তু আমার ধারণা ভুল,,তুমি এই কাজটা কিভাবে করতে পারলে,,!!(স্যার) - স্যার কি বলছেন আমি তো কিছু বুঝতে পারছি না,,,(আমি) - স্যার তখন চেয়ার থেকে ওঠে,, ঠাস,, আমাকে একটা চড় দিলো,,,, কি করস নি বল চিঠি দিছোস ভালো,,,কিন্তু চিঠির ভিতর এসব কি বাজে ভাষা ব্যবহার করছস,,,(স্যার) - স্যার কিসের চিঠি আমি তো কাউকে চিঠি দেয় নি,, (আমি) চুপ আর একটা কথা বলবি না,,এটা বলে কাগজটা আমার হাতে দিলো,,কাগজ টা হাতে নিয়ে তো আমি অবাক আমার হাতের লেখা কপি করা,,যে কেউ বলবে এটা আমি লেখছি,,বুঝতে আর বাকি রইলো না যে আমার খাতাটা ঈশিকা ই নিয়েছিলো,,,, আমি ঈশিকার দিকে তাকালাম, দেখি মিট মিট করে হাসতাছে,,,, - তুই এই মুহূর্তে কলেজ থেকে বের হয়ে যাবি,,(স্যার) - আমিও বেরিয়ে আসলাম,, তার আগে আমার একটা বন্ধু স্যারকে এসব বললাম,, ( আমি) - আমি জানি তুমি এরকম ছেলে না,,, তবে দেখো তুমার কথা যদি সত্যি হয় তাহলে ঈশিকা একদিন তুমার কাছে ক্ষমা চাওয়ার জন্যে আসবে ছটফট করবে,,,,(স্যার) আচ্ছা স্যার আসি আর কলেজে আসবো না পরিক্ষার সমায় শুধু পরিক্ষা দিয়ে যাবো,,নয়তো কলেজে আসলে আবার কোন এক মিথ্যা অপবাদে আমাকে কলেজ থেকে টিসি দিবে, আমি সেটা চাই না,, - আচ্ছা ঠিকাছে ভালো করে পরবা,,,তুমি ভালো রেজাল্ট করবা দেখো,, ( স্যার) আসার আগে ঈশিকা কে একটা ধন্যবাদ দিয়ে আসলাম,,, ভালো থাকবেন,,, আমি বাসায় এসে মাকে বললাম মা আমি মামা বাড়ি থেকে পরবো ওইখানে কলেজে ক্লাস করবো,, - কেনো হঠাৎ কি হলো যে এই কলেজে যাবি না,,,!! - কিছু না এমনি ওইখানে থাকবো,তুমি ব্যাবস্হা করবা কিনা বলো,,,(আমি) - আচ্ছা তর মামার সাথে রাতে ফোনে কথা বলি দেখি কি হয়,,,( মা) - আচ্ছা যা করার তারাতারি করো,,,(আমি) তারপর ফেসবুকে ঢুকলাম,, তার পর ফেসবুক আইডিটা ডিএকটিভ করলাম,,সিমটা চেন্জ করলাম,,, নতুন নাম্বারটা শুধু আমার বন্ধু মেহেদী আর সাকিল কে দিলাম,,আর বলে দিলাম নাম্বারটা যেনো কাউকে না দেয়।। রাতে মামার সাথে কথা বললাম,,, বলে পরদিন সকালে যাওয়ার জন্য রওনা দিলাম,, প্রায় ৪ ঘন্টা ট্রেন জার্নি শেষে মামার বাড়ি পৌছালাম,,, প্রায় ২ বছর পর আসলাম তাই কিছুটা নার্ভাস লাগছে,,আসার পর থেকেই মামিদের খোঁচা মারা কথা শুনতে হচ্ছে,,,,!! - আমি একটু ঘুমাবো ভালো লাগছে না মামিকে বললাম,, (আমি) - তারপর মামি একটা রুম দেখিয়ে দিলো যা ওই রুমে গিয়ে ঘুমা,,, বিকালে ঘুম থেকে ওঠে ফ্রেস হয়ে খাওয়া দাওয়া করার পর,,,,,,, চলবে.........….....
প্রিন্সিপালের ভাগনি প্রিন্সিপালের ভাগনি Reviewed by শেষ গল্পের সেই ছেলেটি on জুলাই ২৯, ২০১৯ Rating: 5

কোন মন্তব্য নেই:

Blogger দ্বারা পরিচালিত.